Fri. Dec 13th, 2019

নাদেলকে মহানগর আ.লীগের সাধারণ-সম্পাদক হিসেবে দেখতে চাই ফেসবুকে ঝড়!

বিশেষ প্রতিনিধিঃ সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন আগামী ৫ই ডিসেম্বর। দীর্ঘদিন পর সিলেটে আওয়ামী লীগের সম্মেলন হওয়ায় উচ্ছ্বসিত নেতাকর্মীরা। সম্মেলনে সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক পদে কারা আসছেন এ নিয়ে আলোচনা চলছে পুরো সিলেট শহরে। এবারের সম্মেলনে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থী হয়েছেন বর্তমান কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক জনাব শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল। ক্লিন ইমেজের রাজনীতিবিদ জনাব শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল এ পদে প্রার্থী হওয়ায় তাকে ঘিরে উৎফুল্ল দলের নেতাকর্মীরা। অনেকেই তাকে সাধারণ সম্পাদক পদে দেখতে চাই এ স্লোগানে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ঝড় তুলেছন। সম্মেলনের তারিখ ঘোষণার পরপরই আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল-কে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দেখতে চাই স্লোগান দিয়ে নিজ নিজ ফেসবুক আইডিতে পোস্ট করে আসছেন। এখনও তা অব্যাহত রয়েছে। ইতিমধ্যে শফিউল আলম চৌধুরী নাদেলকে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দেখতে চাই এ স্লোগানে ব্যানার, পোস্টার এবং ফেস্টুনে আচ্ছাদিত হয়ে গেছে পুরো শহর। তবে এই দাবি ফেসবুকে ঝড় তুললেও রাজপথে এমন দাবি নিয়ে আওয়ামী লীগ নেতাদের দেখা যায় নি।

দলীয় নেতাকর্মীরা মনে করেন শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল এমন একজন নেতা, যিনি সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, সাবেক ছাত্রনেতা, দি সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির পরিচালক বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)-র পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালনে শতভাগ সফলতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন। দায়িত্ব পালনকালে তিনি কখনো দুর্নীতির আশ্রয় নেননি। সর্বদা নিজেকে জনগণের সেবক হিসেবে নিয়োজিত রেখেছেন।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ ও তারই যোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার নির্দেশই হচ্ছে শফিউল আলম চৌধুরী নাদেলের রাজনৈতিক পথচলার প্রধান শক্তি ও অনুপ্রেরণা।

আগামী ৫ই ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত সম্মেলন সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, দেশরত্ন শেখ হাসিনার ভিশন বাস্তবায়নে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সিন্ধান্ত নিবেন ইলেকশন না সিলেকশন।

তবে ইলেকশন বা সিলেকশন সব কিছুর জন্যই আমি/আমরা প্রস্তুত আছি।কারণ কে দলের জন্য কি করেছেন,কার চরিত্র কেমন নেত্রী সব জানেন।তাই আমি মনে করি নবীণ-প্রবীণের সমন্বয়ে মহানগর আওয়ামী লীগের কমিটি হলে ভালো হবে।
দেশরত্ন শেখ হাসিনা আমাকে দায়িত্ব দিলে প্রথমেই আওয়ামীলীগের কার্যালয় নির্মাণ করে তৃণমূল নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে মহানগর আওয়ামীলীগ-কে সুসংগঠিত করব ইনশাআল্লাহ।