Wed. Dec 2nd, 2020

পুড়িয়ে ফেলা সেই লাশের পরিচয় শনাক্ত!

ডেইলি বিডি নিউজঃ লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী স্থল বন্দরে কোরআন শরীফ অবমাননার অভিযোগ তুলে পিটিয়ে হত্যা পর যে ব্যক্তির লাশ পুড়িয়ে ফেলা হয়েছে তার পরিচয় পাওয়া গেছে।

শহিদুন্নবী জুয়েল নামের ওই ব্যক্তির বাড়ি রংপুর শহরের শালবান এলাকায়। জুয়েল রংপুর ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুলের সাবেক লাইব্রেরিয়ান বলে জানা গেছে। তার বাবার নাম আবদুল ওয়াজেদ মিয়া। ঘটনাস্থলে জেলা প্রশাসক আবু জাফর ও পুলিশ সুপার আবিদা সুলতান অবস্থান করছেন।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার মাগরিবের নামাজের আগে বুড়িমারী ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে কোরআন শরীফ অবমাননার অভিযোগ তুলে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যার পর ওই লাশ পুড়িয়ে ফেলে বিক্ষুপ্ত জনতা। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই এলাকায় উত্তেজনা চলছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ ফাঁকা গুলি করেছে। এদিকে ঘটনার পর যুবকের মোটরসাইকেলও পুড়িয়ে দেয়া হয়। আগুন নেভাতে গেলে ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের তাড়া করে সরিয়ে দেয় বিক্ষুব্ধরা।

স্থানীয় কয়েকজন জানান, দু’জন ব্যক্তি আসরের নামাজের সময় মসজিদে ঢোকে। নামাজ শেষে তারা ‘মসজিদে অস্ত্র আছে’ বলে দাবি করে। এ সময় তারা কোরআন ফেলে দেয় ও অবমাননা করে। এমন অভিযোগে একজনকে ধরে পিটিয়ে হত্যা করে আগুনে পুড়ানো হয়। অপরজন পালিয়ে যায়।