Main Menu

ওসমানী হাসপাতালের ইটার্ন চিকিৎসকদের ধর্মঘট প্রত্যাহার, রোগীর স্বজন আটক

ডেইলি বিডি নিউজঃ ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছেন সিলেট এমএজি ওসমানী হাসপাতালের ইন্টার্ন  চিকিৎসকরা। বুধবার রাত ১০ টায় প্রশাসনের আশ্বাসের ভিত্তিতে ধর্মঘট প্রত্যাহার করেন তারা। এরআগে এক রোগীর স্বজনের সাথে ঝগড়ার জের ধরে সন্ধ্যায় তারা ধর্মঘটের ডাক দেন।

ওসমানী হাসপাতাল ইন্টার্ন  চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি ডা. মাজহারুল হক অমিত বলেন, হামলাকারী রোগীর স্বজনদের বিরুদ্ধে মামলা করছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। এছাড়া পুলিশ হামলাকারী রোগীর বোনকে আটক করেছে। এই প্রেক্ষিতে ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছি।

কতোয়ালি থানার ওসি (তদন্ত) মোশারফ হোসেন বলেন, মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। এছাড়া রোগীর বোন পান্না আক্তারকে পুলিশ হেফাজতে নিয়ে আসা হয়েছে।

জানা যায়, গত মঙ্গলবার দুপুর ১২ টায় ওসমানী হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয় হবিগঞ্জের চুনারুঘাটের অন্তঃসত্ত্বা সোমা আক্তারকে। বুধবার দুপুরে তার ব্যথা ওঠলে চিকিৎসক আলাট্রাসনোগ্রাম টেস্ট করান। টেস্টের রিপোর্ট দেখে চিকিৎসক জানান, গর্ভেই বাচ্চা মারা গেছে। তবে কিছুক্ষণ পর সোমা বেগম নিজের গর্ভে বাচ্চার নড়াচড়া অনুভব করতে পান। এ বিষয়টি নিয়ে চিকিৎসকের সাথে কথা বলতে যান সোমার ভাই ও বোন। এসময় দায়িত্বরত ইন্টার্ন  চিকিৎসক তামান্না জান্নাত রিমুর সাথে তার কথা কাটাকাটি হয়।

রোগীর ভাই তামিম অভিযোগ করে বলেন, আমরা ডাক্তার ডাকতে গেলে তামান্না আমাদের সাথে দুর্ব্যবহার করেন। এসময় কথা কাটাকাটি হলে সব ইন্টার্ন  ডাক্তাররা এসে আমাদের উপর হামলা চালান।

তবে ওসমানী হাসপাতাল ইন্টার্ন  চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি ডা. মাজহারুল হক অমিত বলেন, তামিম ও পান্না বাইরে থেকে সন্ত্রাসীদের নিয়ে এসে ডা তামান্নার উপর হামলা চালিয়েছেন।






Related News

Comments are Closed